আজ ১৫ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ৩০শে নভেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

সন্দ্বীপ আজাদ মার্কেটে ফারুক মাষ্টারের উপর সন্ত্রাসী হামলা -গ্রেফতার ২

মিনহাজ উদ্দিন, সন্দ্বীপঃ
প্রতিপক্ষের জমিতে খেলতে গেলে জমির মালিক খেলতে নিষেধ করায়, সন্ধ্যা ৭টা ৩০ মিনিটে সন্ত্রাসী কায়দায় হামলা চালানো হয় ফারুক মাষ্টারের ভাই সুজনের উপর। বাউরিয়া ৯নং ওয়ার্ডের কুচিয়ামোড়া কুচ্ছার গো বাড়ীর ফয়সাল তার বড় ভাই রহিম, রাসেল, তার বাবা আবুল কাশেম, চাচা খোকন, পাশের বাড়ির কাশেম প্রকাশ নিগরু কাশেম, একই ওয়ার্ডের সন্ত্রাসী কাউছার, বাশার মেম্বারের ছেলে শাহীন, লিটন সওদাগরের ভাগিনা নিশাদ, নিশাদের মামাত ভাই সহ ৩০-৪০ জন বহিরাগত সন্ত্রাসী নিয়ে ফারুক মাষ্টারের ভাই সুজনের দোকানের ভিতর সুজনের উপর উক্ত হামলা চালায়। এতে ফারুক মাষ্টার সহ তার ছেলে, তার ভাই মাকছুদ ডাক্তার, তাদের বাড়ীর শরীফ সহ সুজনকে উদ্বার করতে এগিয়ে এলে আক্রমণকারী সন্ত্রাসীরা সবাইকে মার ধর করে চাপাটি, কিরিজ দিয়ে এলোপাতারি কুপিয়ে জখম করে।
কাউছার আর রহিম নামের ২ জন ফারুক মাষ্টারকে রড দিয়ে মারতে থাকে। উনাদের সাহায্যে জনগণ এগিয় আসতে চাইলে সন্ত্রাসীরা ৫-৬ রাউন্ড গুলি ছুড়ে সুজনের দোকানে এবং বাহিরে।
এতে সুজন এবং ফারুক মাষ্টার গুরুতর আহত হয়।বাকিরাও বিভিন্ন জায়গায় আঘাত পেয়ে সামান্য আহত হয়। আহত সুজন বর্তমান চকবাজার সরকারি মেডিকেলে চিকিৎসাধীন, বাউরিয়া জি,কের ফারুক মাষ্টার সহ আরো একজন অন্য ক্লিনিকে আছেন বলে এলাকা সুত্রে জানা যায়। পরবর্তীতে পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনেন এবং ঘটনাস্থল হতে মূল আসামি আবদুর রহিমকে গ্রেপ্তার করেন। অন্য আসামি ফয়সাল মাথায় আঘাত নিয়ে সেন্টাল ক্লিনিকে গেলে পুলিশ গোপন সংবাদের মাধ্যমে তাকে গ্রেপ্তার করে চিকিৎসাধীন রাখেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এই ক্যাটাগরির আরও দেখুন