আজ ৪ঠা মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৮ই জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

বঙ্গবন্ধুর মুর‍্যাল উদ্বোধন ও পুষ্পস্তবক অর্পণে আসেনি আ.লীগ নেতারা, প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন

ফয়সাল আজম অপু, বিশেষ প্রতিনিধিঃ


জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের মুর‍্যাল উদ্বোধন ও প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ অনুষ্ঠানে আ.লীগ নেতাদের উপস্থিত না হওয়ার অভিযোগ উঠেছে চাঁপাইনবাবগঞ্জে।
ভোলাহাট উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদককে অভিযুক্ত করে সংবাদ সম্মেলন করেছেন ভোলাহাট উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মো. রাব্বুল হোসেন।

মঙ্গলবার (১৭ আগষ্ট) ভোলাহাট উপজেলা আ.লীগ কার্যালয়ে এ সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সংবাদ সম্মেলনে এ ঘটনায় ১৫ আগষ্ট জাতীয় শোক দিবসকে অবমাননা করা হয়েছে বলে অভিযোগ করা হয়। লিখিত বক্তব্যে উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মো. রাব্বুল হোসেন বলেন, উপজেলা প্রশাসনের অর্থায়নে উপজেলা পরিষদ চত্বরে ৬ লাখ টাকা ব্যয়ে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের মুর‍্যাল নির্মাণ করা হয়। জাতীয় শোক দিবসের অনুষ্ঠানের মাধ্যমে সেদিন (১৫ আগষ্ট) সকালে এটি উদ্বোধন করা হয়।

এ লক্ষ্যে উপজেলা প্রশাসন, মুক্তিযোদ্ধা, উপজেলা আ.লীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক, সরকারি বিভিন্ন দপ্তর ও গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিদের উদ্বোধনী ও পুষ্পস্তবক অর্পণ অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকার আহ্বান জানিয়ে চিঠি দেয়। উদ্বোধনী ও পুষ্পস্তবক অর্পণ অনুষ্ঠানে সকলকেই উপস্থিত থাকলেও আ.লীগ নেতারা উপস্থিত হননি।

অভিযোগ করে তিনি আরও বলেন, উপজেলা আওয়ামীলীগ বঙ্গবন্ধুর মুর‍্যাল উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়নি এবং দলীয় কার্যালয়ে কর্মসূচি পালন না করে অন্যত্র অনুষ্ঠান আয়োজন করে। সারাদেশে যেখানে সকাল ৭টায় দিবসটির কর্মসূচি শুরু করা হয়, সেখানে উপজেলা আওয়ামীলীগ সকাল ১০টায় কর্মসূচি শুরু করে। উপজেলা আওয়ামীলীগকে বিএনপি-জামায়াত শক্তি এতে উসকানি দিচ্ছে। হাইব্রিড নেতা-কর্মীরা আওয়ামীলীগকে বিভাজন করছে। এমনকি নিজেদের খেয়ালখুশি মতো কাজ করছে উপজেলা আ.লীগ।

সংবাদ সম্মেলনে রাব্বুল হোসেন বলেন, আওয়ামীলীগ নেতা-কর্মীদের মধ্যে মতানৈক্য থাকবে এটাই স্বাভাবিক। কিন্তু বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে উপজেলা প্রশাসনের এমন আয়োজনে উপস্থিত না হওয়াটা অত্যান্ত গর্হিত কাজ। জাতির জনকের মুর‍্যাল উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত না হওয়া বঙ্গবন্ধুকে অবমাননার সামিল। বিষয়টি নিয়ে তদন্ত করতে জেলা আওয়ামীলীগের নেতৃবৃন্দের প্রতি আহ্বান জানান তিনি।

সংবাদ সম্মেলনে আরও উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান গরিবুল্লাহ দবির, উপজেলা আ.লীগের সহ-সভাপতি আইয়ুব আলী, উপজেলা যুবলীগের সভাপতি রেজাউল করিম বাবলু, সাধারণ সম্পাদক তোফায়েল আহমেদ, দলদলি ইউনিয়ন চেয়ারম্যান আরজেদ আলি ভুটুসহ আ.লীগ ও এর সহযোগী সংগঠনের বিভিন্ন স্তরের নেতাকর্মী।

এবিষয়ে ভোলাহাট উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আশরাফুল হক চুনু বলেন, উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে উপজেলা আ.লীগকে কোন আমন্ত্রণপত্র বা চিঠি দেয়া হয়নি। তাই উপস্থিত হতে পারিনি। তবে সকাল পৌণে ১০টার দিকে উপজেলা পরিষদ চত্বরে নবনির্মিত বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে উপজেলা আ.লীগ। এর বাইরে মহিবুল্লাহ কলেজে জেলা আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি জিয়াউর রহমান ও যুগ্ন সম্পাদক এমপি ডা. সামিল উদ্দিন আহমেদ শিমুলসহ আ.লীগ নেতৃবৃন্দকে নিয়ে বড় পরিসরে শোক দিবস পালন করা হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এই ক্যাটাগরির আরও দেখুন